বিয়ে করেছেন ছয় মাস আগে, এখনই খুশির খবর!

বিয়ে করেছেন ছয় মাস আগে, এখনই খুশির খবর!

অনলাইন ডেস্ক:গাঁও গ্রামে একটা কথা এখনো প্রচলিত, বিয়ে করলে নাকি ভাগ্য খোলে! একবিংশ শতাব্দীর এই সময়ে দাঁড়িয়ে এমন মিথ বিশ্বাস করা হয়তো আপনার আমার পক্ষে অসম্ভব, কিংবা কেউ কেউ হেসেও উড়িয়ে দেবেন। তবে কাকতালীয়ভাবে এই হিসেবটা পাক্কা মিলে গেল ক্রিকেটার লিটন দাসের সাথে।

গত বছরের ২৮ জুলাইয়ের দিকে বেশ ধুমধাম করেই বিয়ের কাজটা সেরেছেন লিটন। স্ত্রী’র নাম দেবশ্রী বিশ্বাস সঞ্চিত। তিনি শেরেবাংলা কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষার্থী। সবমিলিয়ে ভালোই চলছে তাদের সংসারজীবন।

তবে মজার ব্যাপার হলো বিয়ের ছয় মাস পার হতে না হতেই সুখবর পেলেন লিটন। আগের চেয়ে তার পারফরম্যান্সের গ্রাফও ঊর্ধ্বমুখী হয়েছে। নতুন বছরের আগে সেই সুখবর দিয়েছে ক্রিকেটের সর্বোচ্চ সংস্থা আইসিসি।

ওয়ানডে আর টি২০ ফরম্যাটে বেড়েছে তার রেটিং পয়েন্ট। সর্বশেষ প্রকাশিত চার-ছক্কার ক্রিকেট র্যাংকিংয়ে বাংলাদেশ থেকে লিটনের আগে কেবল মাহমুদউল্লাহ রিয়াদ আর মোহাম্মদ নাঈম।

টি২০’র ব্যাটসম্যান ক্যাটাগরিতে লিটন আর নাঈমের রেটিং বলতে গেলে উনিশ-বিশ। ৪১তম অবস্থানে থাকা লিটনের ঝুলিতে ৪৯৩। আর নতুন তারা নাঈমের নামের পাশে ৪৯৯।

বিপিএল’টা যেন ভালো খেলছেন লিটন। আগের আসরগুলোতে খুব একটা আলো ছড়াতে না পারলেও এবার রাজশাহী রয়্যালসের হয়ে এরিমধ্যে ৮ ম্যাচ থেকে করে ফেলেছেন ২৩৬ রান। অবশ্য তেমন কোনো বড় ইনিংস নেই। তবে প্রতি ম্যাচেই টুকটাক রান করছেন তিনি।

২০১৯; লিটনের বিয়ের বছর। তাই অন্য সব বছর থেকে এটি একটু আলাদা হওয়াই স্বাভাবিক। লিটনও হয়তো ২০১৯-কে মনের মণিকোঠায় বিশেষ একটা স্থানেই রাখবেন বড্ড যত্ন করে।

মাঠের বাহিরের মতো মাঠের ভেতর ব্যাট হাতেও খারাপ কাটেনি গত বছর। জাতীয় দলের হয়ে ওয়ানডেতে ৯ ম্যাচ খেলে ঝুলিতে পুরেছেন ২৬৩ রান। যার মধ্যে সর্বোচ্চ অপরাজিত ৯৪। টি২০ ক্রিকেটেও খারাপ না।

সংবাদটি পছন্দ হলে শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

themesbazartvsite-01713478536